বাহুবলে আমনের বাম্পার ফলন, আনন্দে উচ্ছসীত কৃষাণ কৃষাণীরা

আলফা বেগম, হবিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জের বাহুবলে চলতি মৌসুমে রোপা আমন ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। আমনের এমন বাম্পার ফলন দেখে কৃষাণ-কৃষানীর মুখে অফুরন্ত হাসি আর আনন্দের ঝিলিক। প্রতিটি কৃষকের ঘরে আনন্দ আর আনন্দ।

বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, যেদিকেই চোখ যায় সেদিকে দেখা মেলে পাকা ধান আর ধান। স্বপ্নের ফসল সোনালি ধান কাটা নিয়ে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন কৃষকরা। অপর দিকে কৃষানীরা ধান মাড়াই ও খড় শুকানোর কাজে ব্যস্ত উঠানে ছড়িয়ে আছে মুঠোয় মুঠোয় সোনালী সোনা। তাদের চোখে মুখে দেখা যাচ্ছে সোনালী ধানের সোনালী আভা। প্রতিটি গ্রামে এখন হেমন্তের ছোঁয়া। পাকা ধান হেমন্তকে আরো রাঙিয়ে দিয়েছে।

এদিকে মাঠ থেকে ফসল কেটে ঘরে তুলতে ব্যস্ত কৃষক তেমনি সিদ্ধ ও শুকিয়ে গোলায় মজুত করা নিয়ে অন্যদিকে ব্যস্ত কৃষাণীরাও। গ্রাম বাংলার আকাশে বাতাসে এখন নতুন ধানের পূর্ণ আমেজ বিরাজ করছে।

স্থানীয় কৃষক আলাউদ্দিন, রইছ মিয়া,কামাল, ইয়াজ মিয়া ও সফিক মিয়ার সাথে আলাপকালে তারা জানান, আমনের এমন বাম্পার ফলন পেয়ে আমরা খুশি। স্থিতিশীল বাজার ও ন্যায্য মূল্য পাওয়ার দাবী তাদের। ফসলের উপযুক্ত মূল্য না পেলে আগ্রহ হারাবে কৃষক পরিবার।

একাধিক কৃষকের সাথে কথা বললে তারা জানান, বিগত সময়ে রোপা আমন ধানের বাম্পার ফলন হলেও আমরা তা বিক্রি করে উপযুক্ত মূল্য পাইনি। তবে, কৃষকেরা আশাবাদী, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপের মাধ্যমে এবছর ন্যায্য মূল্য ও স্থিতিশীল বাজার পাবো। উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা যায়, এবার ১০ হাজার ৭৩ হেক্টর জমিতে আমন ফলন হয়েছে। এবার গত বছরের তুলনায় এবার ৭শত হেক্টর ভূমিতে অতিরিক্ত ফসল হয়েছে।

আরও পড়ুন...

বানিয়াচংয়ে ৪ নং ইউনিয়নে ১ম ইভিএমে ভোট,স্বতন্ত্র প্রার্থী আনোয়ার হোসেনের জয়

অনলাইন ডেস্ক, দৈনিক অনুসন্ধান

সাংবাদিক পুলিশ একে অপরের সহযোগী : বানিয়াচং থানার ওসি এমরান হোসেন

সাংবাদিক রোজিনা ইসলামকে হেনস্তার প্রতিবাদে নবীগঞ্জ প্রেসক্লাবের মানববন্ধন